অনলাইনে আয় করা যাই এই বিষয়টি নিয়ে আমাদের দেশের শিক্ষিত তরুণ তরুণীদের ভীষণ আগ্রহ থাকলেও এখনো পর্যন্ত আমরা তেমন আশানুরূপ ফল পাইনি। তাদের মধ্যে রয়েছে যারা চাকরি প্রার্থী বা ছাত্র, যারা কিনা নিজেই অনলাইন থেকে নানা উপায়ে আয় করার কথা ভাবছে। আর এই ইচ্ছা থাকবেনা কেন, আমাদের দেশে চাকরির যে অবস্থা তাতে একজন গ্র্যাজুয়েটের প্রাইভেট কোম্পানিতে বা স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে সেলারি শুরু হয় ১০/১৫ হাজারের মধ্যে আর সরকারি চাকরি বলা যাই সোনার হরিণ।

যাইহোক অনেকেই হয়তো শুনে থাকবেন অলনাইনে প্রচুর টাকা আয় করা যায় (মাসে তাও ১ থেকে ৫ লক্ষ টাকা) তবে এই টাকা কি ভাবে আয় করা যায় তা অনেকে জানেনা আবার এমন আছে এই সম্পর্কে জানেন তবে সম্পূর্ণ ধারণা নেই। যদি আপনি অনলাইনে ক্যারিয়ার গড়ার কথা চিন্তা করে থাকেন তাহলে আপনাকে সঠিক দিকনির্দেশনা ও একটি গাইড লাইনের মাধ্যমে এই প্লাটফর্মে আসতে হবে এছাড়া এখানে ভালো কিছু করা সম্ভব না।

অনলাইন ইনকাম

অনলাইন ইনকাম -এর বেশ কয়টি মাধ্যম আছে তার মধ্যে সব থেকে জনপ্রিয় হলো আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং। বন্ধুরা আমি আজ আপনাদের সাথে আলোচনা করবো আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং- এর মাধ্যমে কিভাবে আপনি ক্যারিয়ার গড়বেন। তবে আগেই বলে রাখি আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং শেখা ও অনলাইন ইনকাম আরম্ভ করা খুব সহজ বিষয় না আপনি যদি ধৈর্য ধরে স্টেপ বাই স্টেপ কাজটি শিখতে পারেন তবেই আপনার জন্য আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং আর এটা যদি আপনি সঠিক নিয়মে করতে পারেন তবেই ভালো আয় করতে পারবেন। এবং ভালো মানের ইনকাম করার জন্য দরকার আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং বিষয়ে একটি ভাল মার্কেটিং দক্ষতা যা আপনাকে অর্জন করতে হবে।

তাহলে কিভাবে শুরু করবেন?

এখন আপনার সময় কোথায় আপনি চাচ্ছেন ১/২ মাসের মধ্যেই মার্কেটিং শুরু করবেন আবার শুরু করতে হলে আমাজন এফিলিয়েট মার্কেটিং অভিজ্ঞতা দরকার তাহলে উপায় কি? আপনার অবস্থা যদি হয় এমন তারপরও একটু সময় নিয়ে এই প্লাটফর্মে আসা ভালো। একটা কথা মনে রাখবেন তাড়াহুড়া করে কোনো কাজই সঠিক ভাবে করা যাই না আর অনলাইন কাজ তো সম্ভবই নই।


0 Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *